সচিনের রেকর্ড ভাঙার দোরগোড়ায় শুভমান গিল

বেঙ্গল ওয়াচ নিউজ ডেস্ক ::

 

 

 

 

শুভমান গিল। গুজরাত টাইটান্সের ওপেনার এখন ভারতীয় ব্যাটিং লাইন আপের অন্যতম স্তম্ভ। আমেদাবাদের নরেন্দ্র মোদী স্টেডিয়াম তাঁর কাছে আইপিএলের হোম গ্রাউন্ড।

শুভমান গিলের সঙ্গে সচিন তেন্ডুলকরের কন্যা সারার প্রেমপর্ব নিয়ে চর্চা এখন জোরালো। গিল শেষমেশ সচিনের জামাই হবেন কিনা তা বলবে সময়। তবে বিশ্বকাপ ফাইনালে শুভমান ভেঙে দিতে পারেন সচিনের এক মহাকীর্তি।

একদিনের আন্তর্জাতিকে কোনও একটি বছরে সবচেয়ে বেশি রান করার বিশ্বরেকর্ড রয়েছে সচিন তেন্ডুলকরের দখলে। চোট বা অসুস্থতা বাধা না হলে সেই রেকর্ড ভেঙে দিতেও পারতেন শুভমান। ডেঙ্গি আক্রান্ত হওয়ার পর বিশ্বকাপের প্রথমদিকে খেলতে পারেননি। আমেদাবাদে ভারত-পাকিস্তান ম্যাচেই প্রথমবার খেলেন।

সচিন ১৯৯৮ সালে ৩৪টি ম্যাচের ৩৩ ইনিংসে ১৮৯৪ রান করেছিলেন। ৯টি শতরান ও সাতটি অর্ধশতরানের সৌজন্যে। ওডিআইয়ে ক্যালেন্ডার ইয়ারে সর্বাধিক রান সংগ্রহকারীদের তালিকায় সচিনের পরেই রয়েছেন সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়। ১৯৯৯ সালে সৌরভ ৪১ ইনিংসে ১৭৬৭ রান করেছিলেন। ৪টি চার, ১০টি হাফ সেঞ্চুরির সৌজন্যে।
১৯৯৯ সালে রাহুল দ্রাবিড় ৪৩ ইনিংসে ১৭৬১ রান করেন, ৬টি শতরান ও ৮টি অর্ধশতরানের সুবাদে। ১৯৯৬ সালে সচিন ৩২ ইনিংসে ১৬১১ রান করেছিলেন, সেবার মাস্টার ব্লাস্টার ৬টি শতরান ও ৯টি অর্ধশতরান করেছিলেন। ২০০৭ সালে অস্ট্রেলিয়ার ম্যাথু হেডেন ৩০ ইনিংসে ১৬০১ রান করেন, ১৯৯৬ সালে পাকিস্তানের সৈয়দ আনোয়ার করেন ৩৬ ইনিংসে ১৫৯৫।

শুভমান ইতিমধ্যেই ২০০০ সালে করা সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়ের ৩২ ইনিংসে করা ১৫৭৯ রানের নজির টপকে গিয়েছেন। বিশ্বকাপ সেমিফাইনালে নিউজিল্যান্ডের বিরুদ্ধে তিনি অপরাজিত ছিলেন ৮০ রানে। তারই ফাঁকে মহারাজের কীর্তি পেরিয়ে যান। ক্যালেন্ডার ইয়ারে ওডিআইয়ে সর্বাধিক রানের বিশ্বরেকর্ড আপাতত ভাঙা হবে না গিলের।
তবে চলতি বছর দক্ষিণ আফ্রিকায় তিন ম্যাচের ওডিআই সিরিজ খেলবে ভারত। সেখানে সচিনের বিশ্বরেকর্ড ভাঙা অসম্ভব নয় শুভমানের পক্ষে। সেই লক্ষ্যপূরণ করতে কাল ফাইনালেও বড় ইনিংস খেলা জরুরি। চলতি বছর শুভমান ২৮ ইনিংসে পাঁচটি শতরান ও ৯টি হাফ সেঞ্চুরির সাহায্যে ১৫৮০ রান করেছেন, গড় ৬৫.৮৩, স্ট্রাইক রেট ১০৫.৬৮।

উল্লেখ্য, সচিন যে ১৯৯৮ সালে ১৮৯৪ রান করেছিলেন তখন তাঁর ব্যাটিং গড় ছিল ৬৫.৩১, স্ট্রাইক রেট ১০২.১৫। ফলে শুভমান এখনই এগিয়ে রয়েছেন গড় ও স্ট্রাইক রেটে। এমনকী সেই বছর সচিনের দ্বিশতরান ছিল না, শুভমানের আছে। বর্তমানে বিশ্বের ১ নম্বর ওডিআই ব্যাটার যদি কাল আর ৩২ রান করেন তাহলে সচিনের ২৭ বছরের পুরানো এক কীর্তি ধুলোয় মিশবে। সচিন ১৯৯৬ সালে বিশ্বকাপের বছরে যে ১৬১১ রান করেছিলেন, কালই তা টপকে যেতে পারেন গিল।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *