নজিরবিহীন নিরাপত্তার চাদরে রাজধানী

বেঙ্গল ওয়াচ নিউজ ডেস্ক ::আজ থেকে রাজধানী দিল্লিতে শুরু হতে চলেছে জি-২০ সামিট। গতকাল রাত থেকে নজিরবিহীন নিরাপত্তায় মুড়ে ফেলা হয়েছে রাজধানী। আজ সব স্কুল-কলেজ বন্ধ। গতকাল রাত থেকেই শুরু হয়ে গিয়েছে ট্রাফিক নিয়ন্ত্রণ। ১০ সেপ্টেম্বর মধ্যরাত পর্যন্ত বহাল থাকবে এই বিধিনিষেধ।

গোটা রাজ্যকে কড়া নিরাপত্তা বলয়ে মুড়ে ফেলা হয়েছে। আকাশ পথে নজরদারি শুরু করে দিয়েছে বায়ুসেনার কপ্টার। এছাড়াও ড্রোনের সাহায্যে চলছে নজরদারি। ইন্ডিয়াগেটে সাধারণের প্রবেশ নিষেধ করা হয়েছে। কেবল মাত্র হাউস কিপিং, কেটারিং এবং ময়লার গাড়ি যাওয়া আসার অনুমতি রয়েছে। সেগুলিকে ছাড় দেওয়ার আগে চলছে কড়া পরীক্ষা।

আজই দিল্লিতে পা রাখবেন তাবর রাষ্ট্রনেতারা। মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন আজই আসছেন রাজধানী দিল্লিতে। আসছেন ব্রিটেনের প্রধানমন্ত্রী ঋষি সুনকও। ইতিমধ্যেই দিল্লি বিমানবন্দরে এসে পৌঁছে গিয়েছেন আর্জেন্টিনার প্রেসিডেন্ট। তাঁকে বিমানবন্দরে স্বাগত জানানো হয়েছে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে।

নিশ্ছিদ্র নিরাপত্তায় নজরদারি শুরু হয়েছে রাজধানী দিল্লিতে। আকাশ পথে ভারতীয় বায়ুসেনার বিমান টহল দিচ্ছে। এছাড়াও ড্রোনের মাধ্যমে চলছে নজরদারি। বায়ুসেনার দিল্লি বিমানঘাঁটিকে প্রস্তুত রাখা হয়েছে সবরকম পরিস্থিতির জন্য। রাফাল, মিরাজ ২০০০, সুখোই। সেই সঙ্গে একাধিক শক্তিশালী ক্ষেপনাস্ত্রও প্রস্তুত রাখা হয়েছে বায়ুসেনা ঘাটিতে।
রাজধানী দিল্লির একাধিক ঐতিহাসিক পর্যটন স্থল সাজিয়ে তোলা হয়েছে। লালকেল্লা, কুতুব মিনার, আক্ষরধাম মন্দির, দিল্লিহাটে কড়া নিরাপত্তা। বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে ইন্ডিয়াগেট,কর্তব্য পথের যান চলাচল। বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে মেট্রো পরিষেবা এবং সুপ্রিম কোর্ট। রবিবার পর্যন্ত এই নিরাপত্তার বজ্র আঁটুনি বজায় থাকবে রাজধানী দিল্লিতে। অনলাইন ডেলিভারিও বন্ধ রাখা হয়েছে।

তাবর দেশের রাষ্ট্রপ্রধানরা আসছেন জি ২০ সামিটে যোগ দিতে। রাজধানী দিল্লির ২৩টি পাঁচতারা হোটেল বুক করা হয়েছে। প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের জন্য থাকছে বিশেষ নিরাপত্তা ব্যবস্থা। আমেরিকা থেকে উড়ে আসছে তাঁর বিশেষ গাড়ি। বুলেট প্রুফ সেই গাড়ির সুরক্ষা ব্যবস্থা তদারকি করে থাকে মার্কিন সিক্রেট এজেন্সি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *